ওয়ার্ল্ড টি-টোয়েন্টি ফাইনালঃ শেষ হাসি হাসতে মরিয়া ওয়েস্ট ইন্ডিজ-ইংল্যান্ড

নিউজবিডি৭১ডটকম
স্পোর্টস করেসপন্ডেন্টঃ আন্তর্জাতিক টি-২০তে নতুন বিশ্বচ্যাম্পিয়ন কে হবে? জানা যাবে আর কয়েকঘন্টা পরেই। সন্ধ্যায় ক্রিকেটের স্বপ্নভূমি ইডেন গার্ডেনে স্বপ্নের ফাইনালে মুখোমুখি হবে ওয়েস্ট ইন্ডিজ-ইংল্যান্ড। চলছে হিসেব নিকেশ। চুল চেরা বিশ্লেষন।

যদিও কলকাতার মানুষদের মন ভাল নেই। একেতো ভারত নেই, তারপর উড়ালসেতু ভেঙ্গে অসংখ্য মানুষ মারা যাওয়ার শোক।

২০১০ আসরের শিরোপা জিতেছিলো ইংল্যান্ড। আর পরের আসরের চ্যাম্পিয়ন ওয়েস্ট ইন্ডিজ। টি-২০ বিশ্বকাপে এখনও পর্যন্ত দুবার করে চ্যাম্পিয়ন হতে পারেনি কোন দল। কিন্তু এবার হবে। যে দলই জিতুক দ্বিতীয়বারের মতো বিশ্বচ্যাম্পিয়ন হওয়ার স্বাদ নিবে তারা। সেই দল কারা, তার জন্যই অপেক্ষা।

শক্তি ও পারফরম্যান্সের বিচারে দু’দলই প্রায় সমানে-সমান। নিজেদের শক্তি ও পারফরমেন্স ভালোভাবেই প্রদর্শন করেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও ইংল্যান্ড। সুপার টেনে একই গ্রুপে থাকায় একবার মুখোমুখি হয়েছিল দল দুটি। সেখানে অবশ্য অসহায় আত্মসমর্পনই করেছিলো ইংল্যান্ড।

একা ক্রিস গেইলের কাছেই হারতে হয়েছিল ইংলিশদের। ৪৮ বলে ১০০ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলেছিলেন গেইল। কালও ইংলিশদের চিন্তার নাম সেই গেইল। ভারতের বিপক্ষে রান না পাওয়ায় এ ম্যাচে তার জ্বলে ওঠার ঢের সম্ভাবনা দেখছেন সবাই।

সম্ভাবনা দেখছেন ওয়েস্ট ইন্ডিজেরও। দলের সবাই আছেন দারুণ মেজাজে। আত্মবিশ্বাস টগবগ করছে পুরো দল।

ভারতকে হারানোর পর থেকে এখনও যেন ক্যালিপসো নাচ চলছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ শিবিরে। মুম্বাই থেকে কলকাতা আসার বিমানেও নাচ-গানে মেতে উঠেছিলেন ব্রাভো-স্যামিরা।

শনিবার প্রেস কনফারেন্সেও পুরো নির্ভার ছিলেন অধিনায়ক স্যামি। বলেছেন, ‘আত্মবিশ্বাস নিয়ে যদি মাঠে খেলতে পারি তাহলে ইংল্যান্ড কেন, কেউই আমাদের শিরোপা জয় থামাতে পারবে না।’

পরিসংখ্যান বলছে ওয়েস্ট ইন্ডিজের কথা। এই ফরমেটে ক্যারিবিয়ানদের বিপক্ষে রেকর্ড মোটেও ভালো নয় ইংল্যান্ডের। আগের ১৩ লড়াইয়ের মধ্যে মাত্র ৪টিতে জিতেছে তারা। আর ৯টিতেই জয়ের স্বাদ পায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

কিন্তু ক্রিকেট এমন খেলা যেখানে পরিসংখ্যান সবসময় কথা বলে না। ইংল্যান্ডও যে শেষ হাসি হাসবে না, তার গ্যারান্টি কোথায়? ইংলিশ দলে গেইলের মত মেগা তারকা না থাকতে পারে, কিন্তু দলগত শক্তিতে বলীয়ান তারা। ব্যাটিং বোলিং মিলে একটা ব্যালেন্স দল তারা। আছে দলীয় উইনিটি, যারা একাট্রা হয়ে খেলতে পছন্দ করে।

তারপরেও ওয়েস্ট ইন্ডিজকে নিয়ে যেন একটু বেশিই সতর্ক ইংল্যান্ড। প্রেস বিফিংয়ে ইংলিশ অধিনায়ক বললেন,‘ আমি মনে করি ম্যাচটি সহজ হবে না। এটা হবে কঠিন লড়াই। যে কারণে সবাই একটু বাড়তি সতর্কতা অবলম্বন করছি।’

নিউজবিডি৭১/এ আর/এপ্রিল ০৩, ২০১৬