২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং বাংলাদেশের মতো হলুদ সাংবাদিকতা কোথাও আছে কি না আমার সন্দেহ আছে : হানিফ
Mountain View

বাংলাদেশের মতো হলুদ সাংবাদিকতা কোথাও আছে কি না আমার সন্দেহ আছে : হানিফ

0
image_pdfimage_print

নিউজবিডি৭১ডটকম
ঢাকা : বিএনপি-জামায়াতের আন্দোলন করার সামর্থ নেই। তাই তারা কোমলমতি শিশুদের ওপর ভর করেছিল। আর এই শিশুদের নাম করে ওই দিন আওয়ামী লীগ অফিসে হামলা করেছিল। তারপরও অনেক মিডিয়ায় সরকারের বিরুদ্ধে লেখা শুরু করে। কেন? সাংবাদিকতার নামে এমন হলুদ সাংবাদিকতা পৃথিবীতে আর কোথাও আছে কি না- আমার সন্দেহ আছে।বললেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ।

আজ সোমবার রাজধানীর সেগুনবাগিচায় ঢাকা রিপোটার্স ইউনিটিতে ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে বঙ্গবন্ধু ফাউন্ডেশনের উদ্যেগে আয়োজিত আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

হানিফ বলেন, আজও ষড়যন্ত্র চলছে। এই কোমলমতি শিশুদের দাবি তাৎক্ষণিকভাবে পূরণের জন্য সরকার পদক্ষেপ নিয়েছে। তারপরও রাজনীতির কিছু সুবিধাবাদী চরিত্র, যাদের জনগণ প্রত্যাখ্যান করেছে, সেই বিখ্যাত আইনজীবীরা তৎপর হয়ে গেলেন। বিভিন্ন জায়গায় সভা, সেমিনার করে। ভাব খানা এমন দেখায়- এবার কিছু একটা হবে। এই সব সুশীল বাবুদের জানিয়ে দিতে চাই, তাদের মুনাফিকি চরিত্র বাংলাদেশের জনগণের জানা আছে। আপনাদের বেইমানি জাতি বহুবার দেখেছে।

আওয়ামী লীগের এই নেতা বলেন, বিএনপি আন্দোলনের নাম করে পেট্রলবোমা দিয়ে মানুষ মারবে, সরকারি, বেসরকারি সম্পদ ধ্বংস করবে, তারপর মামলা হলে আইনগত কোনও ব্যবস্থা নিলে বলবে সরকার স্বৈরাচারী আচরণ করছে। ভূতের মুখে রাম রাম।

তিনি বলেন, পরিষ্কারভাবে জানিয়ে দিতে চাই, আইন সবার জন্য সমান। এ দেশে অপরাধ করে, মানুষ হত্যা করে, রাজনীতির দোহাই দিয়ে পার পাবেন, সেই সুযোগ নেই। এইসব ঘটনার সঙ্গে যারা জড়িত বা হুকুম দিয়ে করিয়েছেন তাদের প্রত্যেকের বিচার করা হবে। এই ষড়যন্ত্রকারীরা সব সময় তৎপর। তাই এই ষড়যন্ত্র মোকাবেলা করে দেশকে সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যেতে হবে।

নিউজবিডি৭১/আ/আগস্ট ১৩ ,২০১৮

Share.

Comments are closed.