২১শে মে, ২০১৮ ইং ‘উত্তেজক ওষুধ খাইয়ে নারীদের সঙ্গে যৌনকর্ম’,খুন হলেন কবিরাজ
Mountain View

‘উত্তেজক ওষুধ খাইয়ে নারীদের সঙ্গে যৌনকর্ম’,খুন হলেন কবিরাজ

0
image_pdfimage_print

নিউজবিডি৭১ডটকম
কিশোরগঞ্জ : যৌন উত্তেজক ওষুধ খাইয়ে নারীদের যৌনকর্মে বাধ্য করতেন এক কবিরাজ। অনেকদিন ধরেই এমন অভিযোগ ছিল চান মিয়া নামের এক কবিরাজের বিরুদ্ধে। সম্প্রতি জাকির হোসেন নামের এক ব্যক্তির স্ত্রীকে তিনি এই কাজে বাধ্য করেন বলে অভিযোগ পাওয়া যায়।

এমন অভিযোগের পর কবিরাজ চান মিয়াকে কুপিয়ে হত্যা করেছেন ‘ভুক্তভোগী নারী’র স্বামী জাকির। পরবর্তীতে তিনি নিজেই দা হাতে থানায় আত্মসমর্পণ করেছেন। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে কিশোরগঞ্জ শহরতলীর সতাল পাক্কার মাথায় এই ঘটনা ঘটে। নিহত চাঁন মিয়া কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলার যশোদল ইউনিয়নের আমাটি শিবপুর এলাকার মৃত আব্দুল মোতালিবের ছেলে। পেশায় কাঠমিস্ত্রী চান মিয়া এলাকায় কবিরাজ হিসেবে পরিচিত। অন্যদিকে জাকির হোসেন একই এলাকার গিয়াস উদ্দিনের ছেলে।

এলাকাবাসী জানায়, কাঠমিস্ত্রি ও কবিরাজ চান মিয়া তার কাছে যাওয়া নারী রোগীদের যৌন উত্তেজক ওষুধ খাইয়ে এলাকার কিছু লম্পট যুবকদের যৌন লালসা চরিতার্থ করার সুযোগ করে দিতেন। একই এলাকার জাকির হোসেনের স্ত্রীকেও একই কাজে ব্যবহার করার জের ধরে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে পার্শ্ববর্তী সতাল পাক্কার মাথা এলাকায় জাকির হোসেন দা দিয়ে কুপিয়ে চান মিয়াকে মারাত্মক আহত করে। মুমূর্ষু অবস্থায় তাকে কিশোরগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। ঘটনার পর জাকির নিজেই দা নিয়ে থানায় গেলে তাকে আটক করা হয়।

এদিকে এ ঘটনায় নিহতের স্ত্রী আছমা বাদী হয়ে জাকির হোসেনকে আসামি করে মামলা করেছেন।

কিশোরগঞ্জের পুলিশ সুপার মো: আনোয়ার হোসেন খান সময় নিউজকে বলেন, এ ঘটনায় অভিযুক্ত জাকিরকে গ্রেফতার করা হয়েছে। জবানবন্দিতে তিনি বলেছেন, স্ত্রীকে যৌন উত্তেজক ওষুধ খাইয়ে যৌনকর্মে বাধ্য করায় তিনি চান মিয়াকে খুন করেছেন। বিষয়টি তদন্তাধীন রয়েছে। তদন্ত প্রতিবেদনে প্রকৃত ঘটনা বেরিয়ে আসবে।

নিউজবিডি৭১/আ/২২ এপ্রিল, ২০১৮

Share.

Comments are closed.