২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং বিখ্যাত ১২ জন বলিউড তারকা যারা হবার পর পুরনো সঙ্গিকে ছেড়ে দিয়ে বিশ্বাস ঘাতকতা করেছেন…
Mountain View

বিখ্যাত ১২ জন বলিউড তারকা যারা হবার পর পুরনো সঙ্গিকে ছেড়ে দিয়ে বিশ্বাস ঘাতকতা করেছেন…

0
image_pdfimage_print

ডেস্ক রিপোর্ট
নিউজবিডি৭১ডটকম
ঢাকা : বলিউডের চমক সবাইকে আকর্ষণ করে। জীবনে সকলেই একবার বলিউডে যাওয়ার স্বপ্ন দেখে। কিন্তু একবার এই স্বপ্ন সত্যি হলেই, তার নিজের লোক আবার তাদের স্বপ্ন হয়ে যায়।

বলিউডের এই তারকারা তাদের খ্যাতি হওয়ার পরেই তারা তাদের সঙ্গিদের ছেড়ে দিয়েছেন।

দীপিকা পাদুকোন আর নিহার পান্ডা

যদি আপনাকে মডেল এবং অভিনয়ের মধ্যে একটিকে নির্বাচন করতে বলা হয়, আপনি কাকে নির্বাচন করবেন ? অভিনয়! দীপিকাও এটাই করেছেন। দীপিকা মডেলিং যখন করতেন তখন নিহার পান্ডার সাথে ডেটিং করতেন। তার প্রাথমিক দিনগুলিতে তিনি মুম্বাইয়ে নিহারের বাড়িতে থাকতেন। কিন্তু যখন বলিউডে প্রবেশ করেন, তখন তিনি রণবীরের হাত ধরেন এবং দিনের পর দিন সাফল্যের সিঁড়ি উঠতে শুরু করলো।

রণবীর কাপুর এবং অবন্তিকা মালিক

হ্যাঁ, অবন্তিকা ইমরান খানের স্ত্রী, কিন্তু এক সময় অবন্তিকা রনবীরের সঙ্গেঁ ৫ বছর ডেট করেছিল।

প্রিয়াঙ্কা চোপড়া আর অসীম মার্চন্ড

প্রিয়াঙ্কা চোপড়ার ক্যারিয়ারে বেশ কয়েকবার অস্থিরতা দেখা গিয়েছিল, কিন্তু আজ বলিউডের সবচেয়ে সফল নায়িকাদের মধ্যে তাকে গণনা করা হয় প্রিয়ঙ্কা চোপড়াকে। এছাড়াও শহীদ, রণবীর, হারমান ইত্যাদি অনেক নায়কদের সাথে তার নাম জড়িয়ে ছিল কিন্তু আজ উনি এখাই আছেন। কিন্তু এইসবের আগে তিনি অসীম মার্চেন্ডের সাথে প্রেম করতেন। আজও অসিম প্রিয়াঙ্কার নাম নেয় কিন্তু ভালোবেসে নয়।

আলিয়া ভাট আর অলি দাদরকর

আলিয়া ভাট এবং আলী দাদার স্কুলে একে অপরকে ডেট করতেন, কিন্তু আলিয়া ভাটের চলচ্চিত্র “স্টুডেন্ট অব দ্য ইয়ার” যেই এলো তখন আলীয়া তার সঙ্গীকে ছেড়ে বরুণ ধাওয়ানের সাথে ডেটিং শুরু করেছিলেন এবং এখন খবর আসছে আলিয়া ভাট সিদ্ধার্থ মালহোত্রাকে ডেটিং করছেন।

অনুষ্কা শর্মা আর জোহেব ইউসুফ

সাধারণভাবে দুই বছরের সম্পর্ক খুব গুরুতর এবং তারপর বিবাহই তার গন্তব্য। কিন্তু বলিউডের দুবছরের কি দশ বছরের সম্পর্কও বিয়ের ব্যাপারের জন্য যথেষ্ট নয়। অনুষ্কা শর্মা এবং জোহেব ইউসুফ মডেলিং এর সময় ব্যাঙ্গালোরে একে অপরের সাথে সাক্ষাৎ হয়। মুম্বাইয়ে একসঙ্গে আসে এবং দুই বছর ধরে একসাথে থাকে।তারপর অনুষ্কা কে বলিউডে “রব নে বানা দি জোড়ী” র অফার আসে আর সে ইয়ুসুফ কে ছেড়ে দেয়।

ফ্রাইডা পিন্টো আর রোহন অন্তাও

এখন একটি বিখ্যাত জোড়ীর কথা বলি, যার কথা বলিউড থেকে হলিউড পর্যন্ত নিয়ে চর্চিত। স্লামডগ মিলিনিয়ারে অভিনয় করার পর তিনি খুব প্রসিদ্ধ হয়ে যান। কিন্তু তার পরে তার হবু বর বলেন যে তিনি না বলেই তার সাথে সম্পর্ক ভেঙে দেয়। কিন্তু ফ্রাইডা তার সহকর্মী দেব প্যাটেলের সাথে তার সম্পর্ক গড়ে উঠতে শুরু করে এবং রোহান তার জীবন থেকে হারিয়ে যায়।

সোনাক্ষী সিনহা আর আদিত্য

“দাবাং” এর সোনাক্ষী সিনহা চলচ্চিত্রে যোগদানের আগে আদিত্য শ্রফের সাথে প্রেম করতেন। তখন আদিত্য ফেম মাল্টিপ্লেক্স বিজ্ঞাপন বিভাগে একটি প্রোগ্রামিং মাথা হিসাবে কাজ করতেন। বলা হয়ে থাকে যে সোনাক্ষীর সাথে এমন ঝগড়া হয় যে সোনাক্ষী দুই বছরের সম্পর্ক ভেঙে দেয়।

ঐশ্বর্য আর রাজীব মুলচন্দানি

যখনই ঐশ্বর্যের রায়ের নাম আসে তখন লোকেরা সালমান খান এবং বিবেক ওবরের নাম নেয়। কিন্তু এর আগেও অন্য একজন ঐশ্বর্যের জীবনে এসেছিল, যার সাথে ঐশ্বর্যের মডেলিংয়ের দিনে আলাপ ছিল। তিনি রাজীব মুলচন্দানি। মডেলিং দিণের সময় দুজনে একে অপরের সাথে ডেট করত। কিন্তু সাফল্য অর্জনের সিঁড়ি আরোহণ করার পর ঐশ্বর্য আজকের সর্বাধিক কথিত পরিবারের বউ এবং রাজীব মুলচন্দানি ইতিহাস হয়ে যায়।

অর্জুন কাপুর এবং অর্পিতা খান

অর্পিতা এবং অর্জুন কাপুর দুই বছর একে অপরের সাথে প্রেম করত, তারপর দুজনের ব্রেক আপ হয়ে যায়।

জ্যাকলিন এবং হাসন বিন রসিদ অল খলিফা

রায় সিনেমার পর এই শ্রীলংকান সৌন্দর্য সমগ্র দেশে বিখ্যাত হয়ে গেছে। কিন্তু তার প্রথম প্রেম অভিষেক হাশান বিন রশিদ আল খলিফা। এই বাহরাইনের প্রিন্স, যিনি এক সময় এই কন্যাকুণরীকে তার হৃদয় দিয়েছিলেন। জ্যাকুলিনও এই সম্পর্ককে অনুসরণ করেছিল। কিন্তু তারপর জ্যাকলিন বলিউডে আসতেই তাদের সম্পর্ক ভেঙে যায়।

রণবীর সিং এবং আহানা দেওল

আহানা দেওলের নাম রণবীর সিং এর সঙ্গে দেখে চমকে যেতে পারেন। এই জুটি রণবীরের চলচ্চিত্রে আসার আগে ছিল, রণবীর বলিউডে আসার পর তা ভেঙে গেছে।

কঙ্গনা রানাওয়াত আর অধ্যায়ন সুমন

কঙ্গনা খুব ছোটো বয়সে ফিল্ম ক্যারিয়ার শুরু করেন। কিন্তু তিনি তার সিনেমাতে আসার আগে পরিবারকে ছেড়ে দেয় এবং বাড়ি ছেড়ে চলে যান, পরে চলচ্চিত্রে এন্ট্রি গ্রহণ করেন। চলচ্চিত্র কর্মজীবনে অধ্যয়ন সুমনের সাথে সম্পর্ক হয় এবং সাফল্য পাওয়ার পরেই সম্পর্ক শেষ করে দেয়।

নিউজবিডি৭১/আর/ ১৬ এপ্রিল, ২০১৮

Share.

Comments are closed.