১১ই ডিসেম্বর, ২০১৮ ইং ঘরে ফেরেনি ওরা ১৩ জন
Mountain View

ঘরে ফেরেনি ওরা ১৩ জন

0
image_pdfimage_print

নিউজবিডি৭১ডটকম
ঢাকা : নেপালের কাঠমান্ডুতে ইউএস বাংলা এয়ারলাইনসের বিমান বিধ্বস্ত হওয়ার ঘটনায় ১৩ নেপালি শিক্ষার্থী নিহত হয়েছেন। যারা বাংলাদেশের সিলেটের জালালাবাদ রাগীব রাবেয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের অধ্যয়নরত ছিলেন। তারা সবাই নেপালি বংশোদ্ভূত।

তারা হলেন- সঞ্জয় পৌডেল, সঞ্জয়া মহারজন, নেগা মহারজন, অঞ্জলি শ্রেষ্ঠ, পূর্ণিমা লোহানি, শ্রেতা থাপা, মিলি মহারজন, শর্মা শ্রেষ্ঠ, আলজিরা বারাল, চুরু বারাল, শামিরা বেনজারখার, আশ্রা শখিয়া ও প্রিঞ্চি ধনি। ১৯তম ব্যাচের এই শিক্ষার্থীরা ফাইনাল পরীক্ষা দিয়ে ছুটিতে নিজেদের দেশে যাচ্ছিলেন।

জালালাবাদ রাগীব রাবেয়া রাবেয়া মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. মো. আবেদ হোসেন বলেন, বিধ্বস্ত হওয়া বিমানে তার কলেজের ১৩ শিক্ষার্থী ছিলেন। তাঁরা সবাই নিহত হয়েছেন।

অধ্যক্ষ বলেন, চূড়ান্ত বর্ষের পরীক্ষা শেষে ফলাফল প্রকাশের জন্য দুই মাসের মতো সময় লাগে। এই সময়ে সকলেই নিজেদের বাড়িতে চলে যায়। নেপালের শিক্ষার্থীরাও তাদের দেশে যাচ্ছিলেন।

আজ সোমবার দুপুর আড়াইটার দিকে দেশটির নেপালের ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণের সময় ইউএস-বাংলার বিমানটি বিধ্বস্ত হয়। এ ঘটনায় ৫০ জন আরোহী নিহত হয়েছেন বলে বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে। সূত্র: এনটিভি

নিউজবিডি৭১/আর/১৩ মার্চ ২০১৮

Share.

Comments are closed.