১৬ই ডিসেম্বর, ২০১৮ ইং নন্দীগ্রামে সবজির বাজারে আগুন, বিপাকে নিম্ন আয়ের মানুষ
Mountain View

নন্দীগ্রামে সবজির বাজারে আগুন, বিপাকে নিম্ন আয়ের মানুষ

0
image_pdfimage_print

নিউজবিডি৭১ডটকম
বগুড়া করেসপন্ডেন্ট : বগুড়ার নন্দীগ্রাম উপজেলার বিভিন্ন্ হাট বাজারে এই ভরা মৌসুমে শাক সবজির বাজার লাগামহীন ঘোড়ার মত বেড়েই চলছে। যার কারনে অব্যাহত দাম বাড়ার কারনে সাধারন মানুষের নাভিশ্বাস উঠেছে। সবচেয়ে বিপাকে পড়েছে নিম্ন ও মধ্য আয়ের মানুষ। দৈনন্দিন বাজারে তাদের গুনতে হচ্ছে উচ্চ মুল্য। বিশেষ করে যারা দিন আনে দিন খায় তাদের অবস্থা আরও করুন। একদিকে চালের দাম বেশি অন্য দিকে সবজির বাজারে আগুন ।

আর এতে করে খুব সমস্যার মধ্যে পড়তে হচ্ছে এ নিম্ন আয়ের মানুষ গুলোকে। এদিকে উপজেলার চাকলমা হাট, হাটকড়ই, বীজরুল, কুন্দার , নন্দীগ্রাম সদর, উমরপুর, রনবাঘা, পন্ডিতপুকুর , দাসগ্রাম, হাট ঘুরে দেখা গেছে, এলাকার উৎপাদিত শাকসজি বাজারে তেমন দেখা যাচ্ছে না বাহির থেকে তেমন আমদানি নেই যার কারনে বাজার ব্যপক উর্ধগতি ।

বর্তমান বাজারে আলু ২৫টাকা কেজি, বেগুন ৬০টাকা, বই কচু ৩৫টাকা, পিয়াজ ৩৫টাকা, কাঁচা মরিচ ১৬০টাকা, শসা ৫০থেকে ৬০ টাকা, কাঁকরুল ২৫ থেকে ৩০টাকা, কাঁচা কলা ২০ থেকে ২৫ টাকা, পেঁপে ২০টাকা, পটল ৩০থেকে ৪০ টাকা। লাল শাক ৩০টাকা, পুই শাক ২৫ টাকা, তরি ৪০টাকা, কদর ৩৫টাকা, করলা ৮০টাকা, কচুর লতি ৪০টাকা দরে বিক্রয় হচ্ছে।

যে সকল গ্রামে শাকসবজি কৃষকরা নিজে উৎপাদন করে তাদের মধ্যে, বাদলাশন গ্রামের কৃষক কাজেম, কাথম গ্রামের রশিদ, রফিকুল, ছায়েত আলী, বুড়ইল গ্রামের রবিদ্র, যতিশ, হাটকড়ি এলাকার নিতিশ, ভবেশ, শুরেশ, নিরেন জানান , তারা বাড়ীর পার্শে ভিটেতে বিভিন্ন্ ধরনের শাকসবজি আবাদ করেছে কিন্ত একটানা বর্ষা থাকার কারনে শাকসবজি সহ বেগুন, শিম, কাঁচা মরিচ পচে নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। তবে বৃষ্টি বাদল কমে গেলে গাছ গুলির পচন রোধ হলে আবার বাজার স্বাভাবিক হতে পারে।

নন্দীগ্রাম বাজারের সবজি বিক্রেতারা জানান, তারা যেসব জায়গা থেকে কাচাঁ সবজি পাইকারী দরে ক্রয় করে এনে এখানে খুচরা বিক্রয় করত সম্প্রতি সেসব এলাকায় বন্যা ও কয়েক দিনের বৃষ্টিপাতে সেসব গাছ পঁচে মরে গেছে। ফলে তারা তাদের চাহিদা মত সবজি ক্রয় করতে পারছে না। যতটুকু কিনতে পারছে সে গুলোও কিনতে হচ্ছে চড়া দামে । আর তাই পাইকারি বাজারে দাম বাড়ার কারনে তার প্রভাব পড়ছে খুচরা বাজারে। তবে আবহাওয়া ভালো থাকলে চাষীরা নতুন সবজি উৎপাদন করলে সবজির দাম কমতে থাকবে বলে তিনি যোগ করেন।

নিউজবিডি৭১/এম/৭ অক্টোবর , ২০১৭

Share.

Comments are closed.